সাহিত্য ও বিজ্ঞান [সংস্করণ-১] | Sahitya O Bigyan [Ed. 1]

বই থেকে নমুনা পাঠ্য (মেশিন অনুবাদিত)

(Click to expand)
AIGatta ভাষা সাহিত্যশিল্পের প্রকাশ-মাধ্যমরপে অপ্রতুল । তেমনি বিজ্ঞানের প্রকাশ-মাধ্যমরূপেও। '“কৌমকথায় শুদ্ধতর ভাবের আরোপ” করার প্রয়োজন যেমন সাহিত্যিকের তেমনি বৈচ্ঞালিকেরও ৷ কিন্তু বৈজ্ঞানিক-শুদ্ধতা আর সাহিত্যিক-শুদ্ধতা একই প্রকারের eael নয়। বৈজ্ঞানিকের লক্ষ্য হোলে একটামাত্র বিষয়কে একবাবেই বলা, আব তা' দ্ব্যর্থহীন ভাবে, সব চেয়ে Bs ভাবে বলা!এই উদ্দেশ্য সাধন Sata জন্য তিনি ভাষাকে সরল করেন এবং স্যষ্টি করেন 'জাবগন” (jargon) a Bawa: অর্থাৎ তিনি কথ্য ভাষার শব্দভাগুার ও পদানশ্বয়রীতিকে এমনভাবে প্রয়োগ কারেন যাব ফলে প্রত্যেক annals একমাত্র একটাই ব্যুৎপত্তি সম্ভব হয়। কথ্যভাষার শব্দভাণ্াব ও পদান্বয় পদ্ধতি যখন তার উদ্দেশ্য সাধনের পক্ষে স্থল বলে প্রতিপন্ন হয় তখন তিনি একট) নতুন টেকনিকাল Sta বা অবভাষা স্থষ্টি করেন এবং যে সীমিত অর্থ নিয়ে তিনি পেশাগতভাবে ব্যাপূত সেই সীমিত অর্থেব প্রকাশ- ব্যাপারে এই বিশেষ উদ্দেশ্যে রচিত ভাষ।কে ব্যবহাব করেন |বৈজ্ঞানিক ভাষা তার বিশুদ্ধতম অবস্থায় আর কথাশ্রিত ভাষা থাকেনা, তা গাণিতিক প্রতীকের ভাষাতে পরিণত aa |সাহিত্যশিল্পী তার গোষ্ঠীর ভাষাকে সম্পূর্ণ ভিন্ন আর একভাবে বিশুদ্ধ করে তোলেন । বৈজ্ঞানিকের লক্ষ্য এককালীন একটা মাত্র বিষয়কে প্রকাশ করা। আমরা জোর করে বলতে পারি যে এ“অব” অর্থে বিজ্ঞান ও হয় |১৩



Leave a Comment