আর্য্য নীতি বিজ্ঞান : উচ্চপাঠ | Arjya Niti Bigyan : Uchchapath

বই থেকে নমুনা পাঠ্য (মেশিন অনুবাদিত)

(Click to expand)
(১১)উপকারী, তাহা যুগাস্তরের উপযোগী না হইতে পারে। আরও erate সাহায্যে স্বাশ্বত (সর্ববকালিক ) ও সর্ঝবালৌকিক বিধানগুলিকে দেশ- বিশেষ ও কালবিশেষে পালনীয় বিধান হইতে নির্বাচন করা যাইতে, পারে।সনাতন ধর্স্মোপদিষ্ট নীতিবিজ্ঞান এইজন্তই নিরতিশয় প্রামাণিক | Sel আত্মার একত্বরূপ মহাতত্বের উপর, প্রতিঠিত এবং fires প্রজ্ঞালক্ধ। ইহার প্রত্যেক বিধান প্রজ্ঞা ও যুক্তি সাহায্যে প্রামাণ্য, কারণ শ্রুতির প্রত্যেক বিধিই বিবেক বুদ্ধির সিদ্ধান্ত সহিত সম্পূর্ণ'সামগ্তসতযুক্ত।শ্রুতি ও মানবপ্রজ্ঞার সর্ব্বিষয়ে এইরূপ সাহচরিত্ব নিবন্ধন এদেশে Aorta সমন্ধে বহু সম্প্রদায়ের স্ষ্ট হয় নাই। GIS এই সামগ্জস্তের অতাববশতঃ পাশ্চাত্য দেশে নীতিবিজ্ঞান সমন্ধে নানা বিভিন্ন মত প্রচলিত দেখা যায়।অল্যান্ত জাতির ধর্শশাস্ত্রে এই সর্ব্াত্মার একদস্বরূ্প মহামত্য স্পষ্ট নির্দিষ্ট না হওয়ায়, তাহারা নীতিশাস্ত্রের এই' অখপ্তনীয় আরদিকারণ ও ভিত্তি প্রতিষিত করিতে পারেন ate wre: তাঁহারা নীতিশান্ত্রকে কেবল মাত্র দৈববিধানরূপে প্রচার করিতে বাধ্য হইয়াছেন। কিন্তু তাঁহা- দের ধর্শশাস্ত্রে ঈশ্বরকে যেরূপ ভাবে বর্ণনা করা হইয়াছে, অনেকে তাহার afee মানবাদ্মা অর্থাৎ জীবাত্মার বিবিধ erates দেখিয়া থাকেন। সুতরাং মানব প্রজ্ঞার সহিত আপুবাক্য সমূহের বিরোধ উপস্থিত হইয়াছে এবং তাহার ফলে eaters বিরোধি অথবা ধর্দশাস্তোপেক্ষাকারী আর দুইটা নীতিবিজ্ঞানের মতের আর্বির্ভাব হইয়াছে :. এই দ্বিবিধ মতের এক প্রকারের নাম আসত্মপ্রজ্ঞা বা বিবেকবাণীবাদ (Doetrine of Intuition or Conscience) । তীহারা বলেন যে বিবেক



Leave a Comment