বিজ্ঞানের গল্প | Bigwaner Galpa

বই থেকে নমুনা পাঠ্য (মেশিন অনুবাদিত)

(Click to expand)
লু সুয্য q কীটালের মত মনে করা যায়, তবে তাহার তুলনায় পৃথিবী হইয়া] দাড়ায় একটা সরিষার সমান! 'AY পৃথিবী হইতে কত দূরে আছে, এখন তোমাদিগকে সেই কথা বলিব। এত প্রকাণ্ড জিনিসকে আমরা যখন একখানি ছোট রেকাবের মত দেখি, তখন বুঝা যায়, সুধ্য পৃথিবী হইতে নিতান্ত কম দুরে নাই। অনেক বড় বড় পণ্ডিত অনেক পরিশ্রমে এই দূরত্বের একটা হিসাব করিয়া CRA তাহারা বলেন, পৃথিবী হইতে AW প্রায় নয় কোটি ত্রিশ লক্ষ মাইল দুরে আছে। পৃথিবীতে আমরা দু-মাইল দশ-মাইল বা দু-হাজার দশ-হাজার মাইল asa হিস/বপত্র করি। তাই AeA এ দূরত্টা যে কত, তাহা আমরা মনেই করিতে পারি না।একটা উদ্বাহরণ দেওয়া, যাউক। আগেকার মত মনে কর, আমাদের পৃথিবী হইতে AY পযন্ত যেন একট রেলের রাস্তা! আছে এবং আমরা সেই রেল-লাইনের একখানা গাড়ীতে চাপিয়া সুধ্যলোকে যাইবার জন্য যেন বাহির হইয়া পড়িলাম। গাড়ী ঘণ্টায় ত্রিশ মাইল বেগে চলিতে আরম্ভ করিল। এই-রকমে কত দিনে আমরা ACY Cars পারিব, তোমরা আন্দাজ করিতে পার কি ? হিসাব করিলে দেখিবে, গাড়ী- খানি তিন শত পঞ্চাশ বৎসর ধরিয়া দিনরাত al চলিলে কখনই সুর্্যে পৌছিতে পারিবে না। কি ভয়ানক দূরত্ব!



Leave a Comment