সর্ব্বনাশের নেশা | Sarbanasher Nesha

বই থেকে নমুনা পাঠ্য (মেশিন অনুবাদিত)

(Click to expand)
সর্বনাশের নেশাপেশোয়ার-যাত্রার ভ্রমণ-কাহিনী পরে পাঠকপাঠিকাদের স্থবিধামত উপহার দিব; এখন শুধু সেখানে গিয়া যে একটি নূতন অভিজ্ঞতা অর্জন করিয়াছিলাম ও একটি নূতন ধরণের গল্প গুনিয়াছিলাম তাহাই আপনাদের বলিব।প্রভাস-বাবু চাকরী করেন । কাজেই আমি একলাই Tea স্থানগুলি দেখিয়া বেড়াইতেছিলাম। তক্ষশিল৷ দেখিয়া জম্রুদ চলিয়াছি। আমি ছেলেবেলাতেই একটু ফার্সী পড়িয়াছিলাম; তার পর কলিকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে বাংলায় এম-এ পরীক্ষা প্রবর্তনের সময় বাংলার অন্যতম মূলাশ্রয় ভাষা! বলিয়া যখন পশু ভাষা নির্দিষ্ট হইয়াছিল, তখন বাংলার সঙ্গে amiga কি সম্পর্ক জানিবার কৌতুহলে my ভাষারও একটু আলোচন! করিয়াছিলাম; তার পর কোনে নূতন দেশে frm সে-দেশের ভাষার গোটা-কতক কাজ-চল| শব্ধ চট faa শিখিয়৷ লইবার একট। স্বাভাবিক শক্তি আমার আছে; এই সাহসে আমি একটা পাঠানী পোষাক কিনিয়| সেদেশী সাজিয়৷ লইয়াছিলাম ।--ঢিল| অথচ প্রচুর কুঞ্চিত পাজামা, লম্ব foal কোট, পায়ে চাপ. লি জুতা, মাথায় উচ্চ ক্রমণঃ-সরু zal টুপি থিরিয়৷ ফিরোজ! রঙের জরিদার পাগড়ী পরিয়া ক.বুলীর খুড়তাত ভাই সাজিয়া চলিয়াছিলাম। দুইটা ঘোড়া styl করিয়াছিলাম, আর ভাড়৷ করিয়াছিলাম একজন ate za বা রাহ মা পথপ্রদর্শক; একটা ঘোড়ায় চলিতেছিলাম আমি, আর অন্য ঘোড়ায় চলিতেছিল আমার পরিচালক রাহ্‌্বর ওঙ



Leave a Comment