ভারতবর্ষ (সচিত্র মাসিক পত্র) [খণ্ড-১] | Bharatbarsha (Sachitra Masik Patra) [Vol. 1]

বই থেকে নমুনা পাঠ্য (মেশিন অনুবাদিত)

(Click to expand)
we oe SS bf ১ v3 == তাবে Xan a é>.< Le বল: Key C:. | a eae SAO ATT > I och সেবক) নন তত wy a") RR cae অআল্বাক্ত--১৯৩৫এ — i i a Qe [email protected] 4)% ঢা | ah Pkক Ay a a ING ry লি Dp 2.5 Z \ ~\ i Saal টা ৬ co arty Pe) re i a ON as y ENS 1: OE NVI CL Sa ED E> Ps 4 ৮4 . . L is ears ee ay রর লা NS ১ জু ্‌ a a \ = পা ~™ \ ® Siw রাচ006001088688888688866 ৪৪886888168686)621 2768 62886881686617887088701888888888808888818888881888116888887878888888888888888118880888881888808188888888188818। প্রথম খণ্ড ] $কৰিংশ বর্য rn 8 ঢট8017808870র0808চ78188808র1711ব69888080র11810001100801ঘ 1 ঘা LEN ার008087001 পাত উট। , প্রথম সংখ্যা ভান্নুসিংহের পদাবলী শ্রীহরেকৃষ্ণ মুখোপাধ্যায় সাহিত্যরত্ন বৈষ্ণব-পদাবলী বন্ষিমচন্দ্রকে মুগ্ধ করিয়াছিল । “সব্বধর্মান্‌ পরিতাজায মামেকং শরণংব্রজ” লীমদ্ভাগবদ্‌ গীতার এই সর্ববশেষ বাণীতে যেখানে এক? বাহ, সেই সর্বস্ব সমর্পণপুত স্নমহতী ত্যাগধন্ঠ গোপী প্রেমের অদুভুতিই বন্কিমচন্দরের দেশপ্রেমের আদর্শ । বন্কিমচন্দের পদাবলী ব্যাখ্যা দেশাস্মবোধের অভিনব সংহিতা। মধুহুদন ব্রঙ্গাঙ্গন৷ লিখিয়া পদাবলীর প্রতি আপনার শ্রদ্ধার নিদর্শন রাখিয়৷ গিয়াছেন, নবীনচন্দ্রের রৈবতক, কুরুক্ষেত্র ও প্রভাসে পদাবলী পাঠের পরিচয় আছে। Wey ও সারদাচরণ শিক্ষিত বাঙ্গালীকে পদাবলীর মঙ্গে পুরিচিত করিতে w লইয়াছিলেন। ইহইাদেরই যোগ্যতম উত্তরাধিকারী রবীন্দ্রনাথ কবশোরেই বৈষ্ণব-পদাবলীর প্রতি আকৃষ্ট হইয়।ছিলেন। আশ্চর্যের বিষয় সে দিনের কিশোর কবি পদাবলী বুঝিয়াছিলেন, তাহার at উপলব্ধি করিয়!ছিলেন এবং সমধিক আশ্চর্যের বিষয় জীমন্‌ মহাপ্রভু প্রবর্তিত প্রেমধর্শ্মের দিব্যামুভূতিই এই ভাগ্যবান্‌ কবিকে ery সিংহের পদাবলী প্রণয়নে প্রেরণা দিয়াছিল। অধুনা প্রকাশিত পত্রাবলীর মধ্যে ম্বর্গগত প্রভাতকুমার মুখোপাধ্যায়কে লিখিত একখানি পত্রে এই অনুভূতির ইঙ্গিত আছে। শ্রীরাধাকৃষ্ণের নামোল্লেখ না থাকিলেও রবীন্দ্রনাথের বছ কবিতায় এই অনুভূতির প্রকাশ GS সুস্পষ্ট ৷ জীভগবান মাত্র পুণ্যের' পুরস্কার দাতা ও* পাপের দণ্ড বিধাতাই মহল । তিলি আমাদেয়* একান্ত আপনার wa তিনি যট়েশ্বধাপুরণ হইলেও করুণ এবং মধুর। এই ভগবানের ACH ATH বন্ধনের সাধনাই জীমন্‌ মহাপ্রভু প্রবর্তিত প্রেমধর্শ্মের গুঢ়তম রহস্ত। শ্রীরাধিকার মহাভাব মানবানুভূতির অতীত বস্তু। সুতরাং বলিতে হয় গোপীভাবের উপাসনাই এই CHA চরম ও পরম তত্ব । WI, সখ্য ও বাৎসল্য ভাবের উপাসনাও মাধুধ্য পুষ্ট। কিন্তু কাম্তাভাবের উপাসনাই cad মাধুধ্যের সার এই কান্তাভাব, ব্রজের মধুর ভাবই সর্ববভাবের নিদান। অপর তিনটী ভাবে আগে সম্বন্ধ, পরে পরিচর্যম, কিন্তু কান্ডাভাবে পরিচর্য্যার অমুগরূপ ATH, অর্থাৎ সম্বন্ধ এস।নে সেবার অনুগামী । অপর তিনটা ভাবের মত মধুরেও সেবা FeAtrs তাঙৎপধ্যময়, তথাপি এই সেবার একটা স্বাতন্ত্য আছে। এই ass কাস্তাভাবের বৈশিষ্ট্য, এই বৈশিষ্ট্যই পদাবলীর প্রাণ | নিতান্ত অনুগতরূপে একান্ত অন্তরঙ্গভাবে ভূত্যোচিত সেবাই দাসের পরম whl সখার অধিকার ইহাপেক্ষাও অধিক। কাধে চড়ায়, কাধে চড়ে। উচ্ছিষ্ট ফল আনিয়া মুখে fal দেয়। কোনরূপ সঙন্ধোচ নাই, বলে “তুমি কোন্‌ বড়লোক তুমি আমি সম”! বাৎদল্য আরো ay! Ay যশোমতী জানিতেন এই শিশু আমাদেরই প্রতিপাল্য। ইহার ভালমন্দ বোধ নাই, ইহার হিতাহিত বুঝিয়া পুরস্কার তিরস্কারে আমাদেরই একমাত্র অধিকার । গোগীভাবে শ্রীকৃষ্ণের Prey ards কিন্তু ভাবের দিক্‌ দিয়া গোগীভাবের মধ্যে এই তিনটী ভাবতো আছেই, ইহার অতিরিক্ত আরো কিছু আছে। গোগীগণের নিকট জীকৃষ্ণ-_ “গতির্ডর্তী ergs সাক্ষী নিবায়ঃ শরণং সুহৃদ্‌ ৷ Sq প্রলয় BWA নিধান বীজমব্যয়ং ॥”



Leave a Comment