রম্যাণি বীক্ষ্য (সৌরাষ্ট্র পর্ব) | Ramyani Beekshya (Saurashtra Parva)

বই থেকে নমুনা পাঠ্য (মেশিন অনুবাদিত)

(Click to expand)
পা সীমনে হয় আকাশের শেষ আছে, কিন্তু সমুদ্রের casi মাথার উপরে যে আকাশের কুল দেখি না কোন দিকে, সমুদ্রের উপর তার অন্য বপ দেখি। ধীরে ধীরে নেমে এসে সমুদ্রের জলে মিলে গেছে! সমুদ্র তার পরেও আছে, আরও একটু ফুলে আছে,আরও একটু গম্ভীর গবিত ভাবে । কিন্তু লেখানে তার ঢেউ দেখতে পাই নে, সেখানে নেই পারের মতো তরঙ্গভঙ্গ, নেই জলোচ্ছ্বাস আর গর্জন।pays গাড়ির ভিতর wife কথা কইছে ফিস ফিস করে। বলল : গোপালদা, এমনি এক সমুদ্রের ধারে আমি সেই মন্দির দেখলাম। areata মন্দির। ওপরের দিকটা যেন নেই, যেন কোন কালে ছিল না। তবুকী অপূর্ব! SAV সমুদ্র এসে পারের ওপর আছড়ে পড়ছে, ধুয়ে দিচ্ছে মন্দিরের অঙ্গন। ভিজে বারুদের মতো সমস্ত গর্জন তাঁর শেষ হয়ে যাচ্ছে, থাকছে শুধু দীর্ঘশ্বাসের মতো! শব্দ আর সাদা ফেনা। এ কোন্‌ মন্দির গোপালদা ?আমি তার erga জবাব দিলুম : সোমনাথের মন্দির ।স্বাতি আশ্চর্য হয়ে বলল : কিন্তু আধখান। মন্দির কেন দেখলাম 1কেন জানি না, সোমনাথের নামে আমারও চোখের সামনে আধখানা মন্দির জেগে ওঠে। আজ না হয় সোমনাথের নতুন মন্দির এখনও অসম্পূর্ণ, কিন্তু স্বাতি কেন স্বপ্নে তা দেখবে! কেন সম্পূর্ণ দেখরে AL সলোমনাথকে ? তার পরেই নিজের ভুল বুঝতে পারলুম | বললুল : কটা লোক সোমনাথের সম্পূর্ণ মন্দির দেখেছে স্বাতি! প্রভামপত্তনের মাটিতে বুঝি অভিণাপ আছে৷ মন্দির এখানে ভেঙে৭১ on. পর্ব--১



Leave a Comment