আমাদের শিক্ষা [সংস্করণ-১] | Amader Shiksha [Ed. 1]

বই থেকে নমুনা পাঠ্য (মেশিন অনুবাদিত)

(Click to expand)
শিক্ষার উদ্দেশ্য ও সাফল্য ৩দমাজ রাষ্ট্র তাদের অশেষ যত্বস্নেহ দিয়ে বাঁচিয়ে সাহিত্য, সঙ্গীত, শিক্ষা, দর্শন, ও বিজ্ঞানের যে artnet দিয়ে তাদের অনন্ত অমৃতের অধিকারী করে দিয়েছেন তার কতটুকু aa ora পরিশোধ SRA চেষ্টা কর্ছে! শুধু ব্যক্তিত্বের উন্মাদনায় নিজের ure চিন্তার বা খেয়ালের বশে ভারতের স্থন্দর মহান আদর্শগুলি ওলটপালট করে দেওয়ার নাম প্রগতি নয় বা দেশমাতৃকার সেবা নয়। মানুষ তখনই প্রকৃত স্থখী যখন Cafes ভাবগুলি তার মনের উপর তাদের পুর্ণ প্রভাব বিকাশ কর্তে সক্ষম হয়। ভারতের নৈতিক ভাবগুলির মধ্যে বিশ্বমৈত্রী, অহিংসা, নিঃস্বার্থসেবা, দেবে রাষ্ট্রে ভক্তি, সমাজচৈতন্য, এই গুলিই চিরদিন জগতের ara ও প্রীতি অর্জন করে এসেছে, আজ সে সমস্ত ভুলে গিয়ে ব্যক্তিত্বের গরল গিলে প্রচণ্ডকালের Tie ধরে ভাঙ্গনের অট্ৰহাস্তে নিজকে বিভীষিকা করে তুললে দেশের কাছে যে আমাদের অবিশ্বাসী হতে হয়, ভারতের চিরন্তন শিক্ষার আদর্শকে অস্বীকার কর্তে হয়।আমর নিজেরা যদি সর্ববাস্ত:করণে বিশ্বাল করি যে আমর! মাতৃগর্ভ থেকে পড়বাঁর আগ হতেই আমাদের পরিবেশ ও সমাজের কাছে নানা খণে জড়িত এবং সে সকল ad পরিশোধ sata চেষ্টাই মানুষের ব্যক্তিত্বের চরম বিকাশ, তা হলে আমার মনে হয় আমাদের এই Stn দেশ আবার শান্তি স্থথের হাসিতে ও নৈতিক গরিমার আলোয় উদ্ভাসিত হয়ে উঠবে । কিন্ত বড় কথা হচ্ছে এই, শিশুকে এই শিক্ষা দেবার আগে আমাদের নিজেদের এই বিশ্বাস অন্তরের অস্তরতম প্রদেশে অন্নভডব Sal চাই, আর একটা মস্ত জিনিষ চাই, সেটা হচ্ছে আত্মপ্রত্যয়--নিজের উপরে নিজের বিশ্বাস ।একথা সত্যি, সকল শিক্ষকই সমান হন না। সকলেই রাগবির ডাঃ আনন্ডের ( Dr. Arnold ) মত বা কেদ্ববি জের লর্ড আ্যাক্ট্রনের মত উঁচুদরের শিক্ষক হতে পারেন না। শিক্ষকের স্থশিক্ষকতা নির্ভর ক্রে অনেকগুলো জিনিষের উপর-_তীার জ্ঞান, বুদ্ধি, পরিশ্রমশীলতা,



Leave a Comment