কালিদাসের গল্প | Kalidaser Galpa

বই থেকে নমুনা পাঠ্য (মেশিন অনুবাদিত)

(Click to expand)
/*তাহারা সেখানে ইচ্ছামত গান বাজনা করিতেন ( শকু--€৫ম্‌ অন্ক)। বেতন ভোগী গায়ক, বাদক, নর্তকী সবই ছিল সে সময়, ছিল না কেবল এখনকার থিয়েটারের মত নর্্্কীর দল। রাজার সভায় ASStal দল বাঁধিয়া নৃত্য করিতেছে, এরূপ ব্যাপারের উল্লেখ তাহার কোনো কাব্য-নাটকেই পাওয়া যায় না। AWA অনেক রকম নাম পাওয়া যায়। ঢাক, ঢোল, Piel G ছিলই ( কুমার--১১৷/৩৬ )। Wwe অর্থাৎ তবলা, সেতার, বীশী সবই ছিল। গান বাজনা শিথাইবার স্বিধার অন্ত কোনো কোনো রাজা নিজের ব/য়ে “সঙ্গীত-বিদ্যালয়'ও sian দিতেন ( মালবিকা--১ম অন্ধ )।সে-যুগের বিদ্যাচর্চার কথা বলাই বাহুল্যমাত্র। কারণ, যে সময়ের ALAND oh, প্রহরিণী ও পরিচারিকারা৷ লিখিতে পড়িতে জানিতেন, কুমারীরাও স্থললিত পদ্য প্রেমপত্র লিখিতে পারিতেন, রাণীদের aa লিখন ও পঠন করিবার ay “লিপিকরী' পাওয়া যাইত, যে সময়ের মেয়েরাও শিক্ষার aa উচ্চ উপাধি ( afew কৌশিকী ) প্রাপ্ত হইতেন, মহিলা কবির লেখা নাটকের অভিনয় পুরুষেরাও আগ্রহসহকারে দেখিতেন, সে যুগে বিদ্যাশিক্ষা যে কতদূর উন্নতিলাভ করিয়াছিল তাহা সহজেই অনুমেয়।'/ বিজ্ঞান ও জো্যোতিষযেও সে-সময়ে লোকের জ্ঞান ছিল অসীম। এখনকার মত তখনকার লোকে কলের জল পাইতেন না বটে, তবে তাঁহাদের মধ্যেও কেহ কেহ জল পরিতশ্তত্ধ (filter) করিয়া খাইতেন। “কতক? পুষ্পের দ্বারা তাহারা জল শোধন করিতেন ( মালবিকা--২য় Be), তবে কোন্‌ পুষ্পকে যে তখনকার লোকেরা ‘sur পুষ্প বলিতেন, বলিতে পারি না। এখনকার মত যন্ত্রপাতি তখন ছিল al, তবু তখনকার লোকেরা বিদেশ হইতে আমদানী না করিয়াই এমন এক রকম যন্ত্র নির্মাণ করিতেন, যার দ্বারা জল উর্ধে উঠিয়া ফোয়ারার মত নীচে পড়িত (রখু--১১৪৯)। তখনকার দিনে ইলেক্টিক লাইট ছিল al, তবে তাহারা এত তেজস্কর আলোকের ব্যবস্থা! ক্লরিতে পারিতেন ca, সে আলোর সাহায্যে শহরের অনেকথানি স্থান আলোকিত করিতে পারা যাইত। সাধারণত তাহারা এক বিরাটকায় শিবের প্রতিমৃপ্তি নির্বাণ, করিয় সেই প্রতিমুত্তির stony উপর চন্দ্রের আকারে আলে! জালাইতেন, সেই আলোর তেজে অদ্ধকার রাজিও জ্যোৎস্নাম্য় মনে হইত ( রঘু--৬1৩৪ )। সেই সময়ে কেহ কেহ আবার হীরক প্রভৃতি বহুমূল্য প্রস্তরের wry নকল করিতেও পারিতেন (বিক্রম-- ২য় অন্ধ )।চন্দ্রের যে নিজের আলোক মোটেই নাই, সুর্যের আলোক চাদের উপর পড়ে বলিয়াই



Leave a Comment