বাংলা প্রবাদে দেব-দেবী [সংস্করণ-২] | Bangla Probade Sthan Kal Patra [Ed. 2]

বই থেকে নমুনা পাঠ্য (মেশিন অনুবাদিত)

(Click to expand)
বাংলা প্রবাদে দেব-দেবী / ১১.একটি প্রবাদে ses হরির বিরুদ্ধে কিছু অনুযোগ উচ্চারিত হয়েছে - | তুমি যদি হরি পতিতপাবন, তবে কেন আমার দশ] এমন । কিংবা, কৃষ্ণ যদি পতিত পাবন, তবে রাধার কেন দশা] এমন | অপর একটি হরি বিষয়ক প্রবাদে বলা হয়েছে - কড়ি পেলে হরি মেলে | এইবার একটি প্রবাদ উদ্ধার কর] গেল যাতে হরিকে খুব মৃদুভাবে ব্যঙ্গ Fay হয়েছে - হরি বড় দয়াময়, কথায় বটে কাজে নয়। যতসামান্য প্রয়াসে নিশ্চিত লাভের পরিপ্রেক্ষিতে বলা হয়-_ হরি বললেই কড়া চাল। হরির পর কৃষ্ণ-বিষয়ক অন্যান্য প্রবাদের প্রসঙ্গ । এই প্রবাদগুলিতে কৃষ্ণের দেবত্বকে স্বীকার করে নেওয়া হয়েছে, স্বীকৃতি দেওয়া হয়েছে Sta সীমাহীন ক্ষমতাকে - ক. ইষ্ট যেই কৃষ্ণ সেই, ছুয়ে কিছু ভেদ নেই। খ. কৃষ্ণকথা মধুর বাণী, তুমি বল আমি শুনি | গ. বিশ্বাসে মিলায় কৃষ্ণ তর্কে বহুদূর | রাখে কৃষ্ণ মারে কে, মারে FH রাখে কে ? কৃষ্ণ কেমন, যার মনে CAAA | ফলের মধ্যে আম, মানুষের মধ্যে স্যাম | কাপড়ের মধ্যে সাদা, নারীর মধ্যে রাধা ॥ অভাবনীয় বিস্ময় প্রকাশ করতে গিয়ে কৃষ্ণ সংক্রান্ত একটি প্রবাদে বলা হয়েছে-- কাকের মুখে FR কথা | তেমনি আবার জাগতিক কর্মে উৎসগীঁকৃত প্রাণকে কৃষ্ণ কথা অরবণের আন্তরিক: আহ্বান জানিয়ে বলা হয়েছে-_ তাতী তাঁত বুনতেই মন, তাঁতী Besa] শোন | চারিত্র ধর্ম বোঝাতে গিয়ে একস্থানে বলা হয়েছে- RBG] BIT] বকে, মধু হয়ন] বোলতার BITS | অর্থাৎ যে যার ধর্ম তাই অনুসরণ ক্রে, এর বৈপরীত্য Way) যে কাজ অন্য সকলের ক্ষেত্রে প্রশস্ত, সেই কাজেই A আচরণে যদি মুষ্টিমেয়ের প্রতি. ভিন্নতর আচরণ প্রদশিত হয়, তবে স্বভাবতঃই ছুঃখের আর অবধি থাকেনা । সেই অভিমানই অভিব্যক্ত হয়েছে এই প্রবাদটিতে-_



Leave a Comment