সংকট | Sankat

বই থেকে নমুনা পাঠ্য (মেশিন অনুবাদিত)

(Click to expand)
“eft বলে দিলেন বলে, মনে হচ্ছে যেন সেইরকম সেইরকমলাগছে ।”হো হো করে হেসে ফেটে পড়লেন তিনি। বুঝতে পেরেছেন যে আমি তার মন জুগিয়ে কথা বলছি ।অমি অবাক হয়ে যাই বিশ্বাসজীর রূকম-সকম দেখে। ভাবালুতা যে চিরকাল তাঁর gers বিষ।এর বছর দেড়েক পরের আর একট। ঘটনা বলি। যুক্তির sP- পাথরে যাচাই না করে বিশ্বাসী কোন বিষয়কে স্বীকৃতি দিতেন না ॥ কেমন ভাবে হোমিওপাথি ওষুধে কাজ করে, সে সম্বন্ধে মনে WATT মত বৈজ্ঞানিক যুক্তি না পাওয়ায়, তিনি ওই শান্তটাতেই অবিশ্বাস কবতেন। এহেন বিশ্বাসঙ্গীর মধ্যে যুক্তিহীন ভাবালুতা দেখলে বিস্মিত হবারই কথা। আমি ভোবে উঠে চলে আসবো, উনি আটকালেন।“তোমরা হলে কাজের মাহুয, আমার মত cel নও। কিন্তু দু-তিন ঘণ্টা আরও থাকলে কিছু মহাভারত aes হয়ে যাবে all সাড়ে দশটার সময় তোমাকে একটা জিনিস দেখাব 1” ,তার বাগানের পাচিলের একদিকে রেগুদিদের বাড়ি থেকে আসা- যাওয়া করবার জন্য একটা ছোট দরঙ্গা আছে। তারই পাশে একটা ভাল জাতের পাতাবাহাবের tte) সাড়ে দশটার সময় Sta starr থেকে সেই গাছটাকে দেখালেন। তখন শীতকাল । গাছটার Gere এতক্ষণ বেণগুদিদের বাড়ির ছায়া পডছিল। এই প্রথম শীতের সকালের রোদ লাগল, ছায়া সরে গিয়ে। আধভেজা লাল লাল পাতাগুলো fag রোদের ঝলক মেখে ঝলমল কবে উঠল। এমন একটা কিছু wa ব্যাপার নয়, উনি না বললে নজরেও পড়ত না।“আমি রোজ দেখি। অপেক্ষা করে থাকি এই সময়টার।” ' মুখচোখ দেখেই বোঝা গেল যে তাঁর অনাবিল আনন্দ উদ্ভাসের মধ্যে কোনরকম ভেজাল নাই | আমারও দেখতে বেশ WHI লাগছে, এই কথাটা তাকে জানাবার পরও অভ্যাসবশে আমি বলি--“যে গাছের পাতা বেশ4



Leave a Comment