সচল জগন্নাথ শ্রীকৃষ্ণচৈতন্য | Sachal Jagannath Srikrisnachaitanya

বই থেকে নমুনা পাঠ্য (মেশিন অনুবাদিত)

(Click to expand)
না ফেললে মুক্ত হতে পারছি না। মুক্তি সহজে 'মাসে না বোধ হয়। মায়া মোহ মানুষের জন্মগত অভিশাপ ৷ কিছুতে কাটতে চায় না। সেই গন্ধমাদন উৎপাটন না হওয়া অবধি মুক্তি wea বিশল্যকরণী পাওয়া অসম্ভব । আমার জীবনের সবচেয়ে বড় বন্ধন হল নিমাই । মহাপৃথিবীর দিকে যে অবারিত পথ, সেই পথ আগলে দাড়িয়ে আছে সে Iদাদা বাড়ি যাবি না? নিমাই-এর আচমকা ডাকে চমকে উঠল বিশ্বরূপ । একটা ঘোর লাগা আচ্ছন্নতা থেকে স্বাভাবিকতায় ফিরল |মাথার উপর ফাল্গুনের আকাশ | তারায় তারায় দীগু। আকাশ ভারী সুন্দর দেখাচ্ছে। পূর্বাকাশে সিংহরাশির উত্তর ফাল্গুনী, পূর্ব ফাল্গুনী নক্ষত্র পশ্চিমে কর্কটরাত্রির Aol) মধ্যগগনে মিথুনরাশি আর কালপুরুষ সমস্ত আকাশকে নরম উজ্জ্বলতায় ভরে দিয়েছে কত অসংখ্য নামী ও অনামী তারা | মায়াবী চোখে তাকিয়ে আছে Aas আর অগস্তা। তাদের উত্তরে ব্রহ্মহাদয় |দীর্ঘ একটা সময় বিশ্বরূপ চেতনাহীনতার মধ্যে কাটিয়ে ক্লান্তি তানুভব করল | ধৃূপছায়ার মত অন্ধকারের মধ্যে নিমাই তার বড় বড় দুই চোখে দেখতে পাচ্ছিল । চোখের দৃষ্টি স্থির নয়, স্বাভাবিক নয়। সামান্য কিছুক্ষণ চুপ করে থেকে অক্ফুটস্বরে ডাকল ?£ নিমাই! এখনি Be ভাই ? সময়টা গঙ্গার দিকে চেয়ে চেয়ে কাটিয়ে দিলি। পাছে একাগ্রতা ভেঙে যায়, তাই ডাকতে পারিনি তোকে । অত তন্ময় হয়ে কি দেখছিলি নদীতে?বিশ্বন্ূপের চোখে চোখ রেখে নিমাই বলল 2 আমার দেখাটা কোন ব্যাপার নয়, তুমি কি বলছিলে বল ?হাসি হাসি মুখ করে বিশ্বন্ূপ বলল? তুমি কি foal করছিলে বল।আমি কোন চিন্তাই করিনি । চুপ করে বসে থাকতে আমার ভাললাগে | বিশেষ করে গঙ্গার ধারে বসলে মা'কে মনে পড়ে । আমার কল্পনায় মা আর গঙ্গা এক হয়ে যায় । গোটা গঙ্গা! নদীটা আমার মা হয়ে যায়। স্নানের সময় মায়ের মতই কত FABIA আর ধকল তাকে ay করতে হয় প্রতিদিন | ঢেউগুলো আমার খেলার সাথী হয়ে Vrs yaw খরআআতা এই গলঙ্গায় নিয়ে আর নিশ্চিন্তে এপার ওপার করতে আমার একটুও ভয় করে Al | মনে হয় আমি ata কোলেই আছি ।অবাক ছুই চোখে বিশ্বরূপ নিমাই-এর দিকে তাকাল । বিশ্ময়ের ঘোরv



Leave a Comment