সচল জগন্নাথ শ্রীকৃষ্ণচৈতন্য | Sachal Jagannath Srikrishnachaitanya

বই থেকে নমুনা পাঠ্য (মেশিন অনুবাদিত)

(Click to expand)
যে কতখানি এই মুহূর্তে নিমাই টির com নিমাইয়ের বুকের মধ্যে ক্রমশ ঘন হয়ে উঠল 'একটা ব্যথা। ব্যথায় কয়েক মুহূর্ত নিশ্চল হয়ে কাটল তার। তারপরেই আর কালহরণ না করে গঙ্গার ঘাটে ছুটল।দৌড়, দৌড়, দৌড় | কানের দুপাশ দিয়ে বাতাস কেটে বেরোচ্ছে | মনে হল বাতাস যেন বিশ্বরূপের গলায়. বলছে, নিমাই এমন করে ছুটিস না ভাই । বিধাতার কাজের যোগ্য হতে হয় নব নব দুঃখ বরণের কঠিন মূল্য দিয়ে। মহাপৃথিবীর প্রাঙ্গণে যার নিমন্ত্রণ ছোট গৃহকোণ কখনও তার জন্যে নয়। বিধাতা তার নিজের কাজের জন্যে কিছু কিছু মানুষকে ছন্নছাড়া করে। রাজার এশ্বর্য, সুখ, বিলাস, আনন্দ, সিংহাসন, মায়া, মোহ, মমতা দিয়ে সিদ্ধার্থকে শক্ত করে বেঁধেছিল, তবু তাকে ধরে রাখতে পারল না পিতা শুদ্ধোধন | অনেক দুঃখের মূল্যে সার্থক হ্য মহংৎকার্য। বিশাল পৃথিবীর অবারিত ates, অরণ্য, নদী, পর্বত, আমাকে হাতছানি দিয়ে ডাকছে-_তোর সাধ্য কি আমাকে দৌড়ে ধরার।নিমাই এ কাকভোরে গঙ্গার ঘাটে অদ্বৈতাচার্যকে ছাড়া আর কাউকে দেখল না। অদ্বৈতাচার্য প্রতিদিনের মত আজও এক কোমর জলে দাঁড়িয়ে উর্ধ্বসমুখে আকাশের দিকে তাকিয়ে তদগতচিত্তে Sansa স্বরে Aiwa পাঠ করছিল। প্রিয়শিষ্য বিশ্বরূপ আজ তার সঙ্গী না হওয়ার জন্যে কোন চিত্ত চাঞ্চল্য নেই । তিনি ধীর fea শাস্ত নিরুদ্বিগ্ন।উন্মাদ বাতাস ছুটে এসে নিমাইয়ের চুলগুলো এলোমেলো করে দিল। নিমাইয়ের দিশেহারা ভাব। যে প্রত্যাশাটা গঙ্গার ঘাটের সীমায় আবদ্ধ ছিল, দমকা বাতাসে কী করে যেন তার সব আশাটুকু উড়িয়ে নিয়ে গেল। দুঃসহ দুঃখ মনে অবাধে বিস্তার লাভ করল। এক অসহায় কান্না তার বুক ঠেলে উঠে এল | চোখের পাতা ভিজে গেল।গঙ্গার ঘাটে কয়েকমুহূর্ত নিশ্চল হয়ে কাটল তার। তারপরেই সে দৌড়তে লাগল। আর্তস্বরে কাপাগলায় প্রাণপণে চিৎকার করে ডাকল ? দাদা! দাদা! দাদা! তার সেই আকুল করা ডাকে বাতাস উতলা হল, নদী চঞ্চল হল। প্রতিধ্বনি যেন নিমাইয়ের সঙ্গে কণ্ঠ মিলিয়ে THA থেকে পুনর্বার উচ্চারণ করল £ দা-আ-দা-আ-আ। দা-আ-দা-আ-আ-আ!নিমাই কতপথ কত গ্রাম কত ATs পার হয়ে গেল। তবু বিশ্বরপের দেখা পেল না। অবশেষে ANB, FTW, অবসন্ন হয়ে বিষণ্ণ ও Slates মন নিযে গৃহে ফিরল। একটা দারুণ কষ্টে ও দুঃখে তার হৃদয় ব্যথিত ও মথিত হতে লাগল। প্রভাতের নিস্ত্ধ গ্রাম, নিস্পন্দ বনজঙ্গলের গাছপালা ,বৃক্ষও যেন তার দুঃখে-শোকন্তব্ধ । আত্মীয়, বান্ধব প্রতিবেশীর মত সসঙ্কোচে তাদের সমবেদনা জানাতে পথের ধারে সারি সারি নিষ্পন্দ হয়ে দাঁড়িয়ে। কেবল, গঙ্গাই নির্বিকার আর উদাসীন। তার অশাস্তিও নেই, দুঃখও নেই। দুর্ভবনাও নেই কারো জন্যে কষ্ট নেই। সমবেদনা প্রকাশের গবজও CB! অফুরস্ত চলার আনন্দে TG হয়ে গর্বিত নদীর মত কলহাস্যে চলেছে মহাসমুদ্রের অভিসারে। পথে হাঁটতে হাঁটতে নিমাই আরো দেখল সচল প্রাণীকুল, কীটপতঙ্গ, গরু, ছাগল, কুকুর, মার্জার প্রভৃতি অবলা প্রাণীদের জীবনে কোন ae fers! উদ্বেগ, Bw নেই । দুঃখ-কষ্ট, যন্ত্রণা, বেদনা, শুধু মানুষের BT | প্রিয়জনকে হারানো এবং তার বিরহের জন্য মানুষ কত বেদনা, দুঃখ ও কষ্ট পায়, কত অশান্তি আর TRIS করে।সকালের রোদ তেতে উঠলে নিমাই বাড়ি ফিরল। বাবা-মার কথা ভেবে তার ভীষণ৯১০



Leave a Comment